ফেসবুক ও মিডিয়া নির্ভর রাজনীতি শুরু করেছেন শাহজাহান চৌধুরী-এমপি বদি

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ 

কক্সবাজার-৪ উখিয়া-টেকনাফ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আব্দুর রহমান বদি বলেছেন, উখিয়া-টেকনাফে নৌকার সু-নিশ্চিত বিজয় দেখে বিএনপি প্রার্থী শাহজাহান চৌধুরী প্রশাসনের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করেছেন। জনগনের কাছ থেকে সাড়া না পেয়ে তিনি ফেসবুক ও মিডিয়া নির্ভর রাজনীতি শুরু করেছেন। নির্বাচনী মাঠে না নেমে গোপন জায়গা থেকে ভিডিও বার্তায় বিএনপি-জামায়াতের সন্ত্রাসীদের দিয়ে নাশকতামূলক কর্মকান্ডের পরিকল্পনায় ব্যস্ত। তাই ৩০ ডিসেম্বর আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মীদের সতর্ক থাকতে হবে। ভোট কেন্দ্র পাহারা দিয়ে নৌকার প্রার্থী শাহীন আক্তারের বিজয় নিশ্চিত করে ঘরে ফিরতে হবে। আর না হলে আবারো উখিয়া-টেকনাফের জনগন উন্নয়ন বঞ্চিত হবে। এমপি বদি আরো বলেন, টেকনাফে ইয়াবা নিয়ে যে বদনাম রয়েছে তার দুর করতে হবে। তিনি বলেন, ইয়াবা ব্যবসায়ীদের ভোট নৌকার দরকার নেই। বিএনপি প্রার্থী ইয়াবা ব্যবসায়ীদের টাকায় টেকনাফের ওসিকে বিতর্কিত করার অপচেষ্টায় লিপ্ত।

তিনি বলেন, বিএনপির এসব ষড়যন্ত্র সফল হবে না। কারন জনগন এখন বিএনপির মিথ্যাচার বিশ্বাস করে না। তিনি বুধবার বিকেলে টেকনাফ উপজেলা কেজি স্কুলের মাঠে নৌকা মার্কার সমর্থনে টেকনাফ উপজেলা শ্রমিক লীগ আয়োজিত বিশাল কর্মী সমাবেশে এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, উখিয়া-টেকনাফের লক্ষী আসনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আমার সহধর্মিণী শাহীন আক্তারকে মনোনয়ন দিয়েছেন। জননেত্রী শেখ হাসিনা উখিয়া-টেকনাফ বাসীকে বিশ্বাস করেন। তাই তিনি বিশ্বাস করেন উখিয়া-টেকনাফের জনগন ৩০ ডিসেম্বর নৌকায় ভোট দিবে। উখিয়া-টেকনাফের চিত্র আগামী ৫ বছরে পাল্টে যাবে। যে পরিকল্পনা বর্তমান আ’লীগ সরকার নিয়েছে তা বাস্তবায়ন হলে টেকনাফ হবে পর্যটনের মূল কেন্দ্রবিন্দু। সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সাবেক সাংসদ ও টেকনাফ আ’লীগের সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী বলেন, নৌকা স্বাধীনতার মার্কা, নৌকা উন্নয়নের মার্কা। তাই ৩০ ডিসেম্বর নৌকায় ভোট দিয়ে আবারো প্রমান করতে হবে টেকনাফের মাটি নৌকার ঘাটি। টেকনাফ উপজেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি ও টেকনাফ সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শাজাহান মিয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন,

উখিয়া-টেকনাফে নৌকার প্রার্থী শাহীন আক্তার, টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি উপজেলা চেয়ারম্যান জাফর আহম্মদ, টেকনাফ পৌর মেয়ের হাজ্বী মোহাম্মদ ইসলাম, অ্যাডভোকেট রিনা, টেকনাফ উপজেলার ভাইস চেয়ারম্যান মৌলভী রফিক উদ্দিন, উপজেলা আ’লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি জহির হোসেন এমএ, জেলা আ’লীগের ত্রান বিষয়ক সম্পাদক ইউনুছ বাংগালী, সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী এড. লীনা সহ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।