সাংবাদিক শাহ্ মুহাম্মদ রুবেল অনেকের জন্য অনুপ্ররেণার দৃষ্টান্ত!!

মিজানুর রহমান মিজান।ডেইলি টেকনাফ ডটকম।

কাজ সবাই করে কিন্তুু ক’জন মানুষ পারে আরেকজনের উপকারে নিজকে উৎসর্গ করতে।নিজের স্বপ্নের কাচাকাচি সহকর্মীদের আনন্দ অনুভব করতে।সৃষ্টিশীলতার সমস্ত মুলমন্ত্রে যার একটিই লক্ষ্য তা হল কক্সবাজার তথা টেকনাফের উঠতি সংবাদ জগতে যারা শিক্ষিত মার্জিত এবং আগ্রহী,মননশীলতার অভিপ্রায়ে তাদেরকে সব ধরণের সহযোগিতা তিনি করবেন।

সংবাদ টেকনাফ”নামে নিউজ ওয়েবসাইট বানাবার এক মুহুর্তে টেকনাফের মিডিয়া নিয়ে অনেক প্রশ্নের ফাকে আমি বুঝতে সক্ষম হলাম।এই ওয়েবসাইট সম্পূর্ণ  আমার সামনে আমার নিউজ রুমে তৈরী।

তেমনি গত বছর কোন একদিন আমাকে “ডেইলি টেকনাফ”তৈরী করে দিয়েছিলেন যদিও আমি তখন ও জানতামনা তথ্য প্রযুক্তি ও মানবিক সৃষ্টিশীলতায় শাহ্ মুহাম্মদ রুবেল এতটা দক্ষ।

দৈনিক ভোরের টেকনাফ”কালারিং করছিলেন প্রিয় সহকর্মী হাবিব ভাইয়ের জন্য।ওনাকেও বলতে শুনেছি রুবের প্রশংসার বাক্য।

শাহ্ মুহাম্মদ রুবেল আরও এগিয়ে চলুক সৃষ্টিতে,মানবিক গুনে ও মানুষের দোয়াই ভরে উঠুক সম্ভাবনার এই নক্ষত্রের।

নিম্নে শহীদ উল্লাহ শহীদ’র ফেস বুক স্ট্যাটাস কপি করে দেয়া হলঃ-



 

 

 

সর্ব প্রথমে মহান রাব্বুল আলামিনের কাছে শুকরিয়া জ্ঞাপন করছি। আলহামদুলিল্লাহ।

প্রত্যেক সংবাদকর্মীর স্বপ্ন থাকে তার নিজস্ব একটি ওয়েবসাইট বা ব্লগ বা নিউজ পোর্টাল থাকবে যেখানে সে সমাজে ঘটে যাওয়া নানা অনিয়ম দুর্নীতির বিরুদ্ধে লিখবে।

সে স্বপ্ন আজ সত্যি হয়েছে। স্বপ্ন সত্যি হওয়ার পিছনে যে মানুষটি কাজ করেছেন তিনি হলেন আমাদের টেকনাফের সুপরিচিত তরুণ সাংবাদিক এবং তথ্যপ্রযুক্তিবিদ শাহ মোহাম্মদ রুবেল ভাই।

সৃষ্টিশীল ব্যক্তি শাহ মোহাম্মদ রুবেল ভাই খুব অল্প সময়ে অতি যত্ন সহকারে ওয়েবসাইটটি ডিজাইন এবং ডেভলপ করে দিয়েছেন। আমি উনার কাছে কৃতজ্ঞ এবং ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি।

শাহ মোহাম্মদ রুবেল ভাই সাংবাদিকতার পাশাপাশি আইটি সাপোর্ট দিয়ে যাচ্ছেন দেশী বিদেশী অনেক নামকরা প্রতিষ্ঠানকে।

তিনি টেকনাফ থেকে প্রকাশিত আলোকিত টেকনাফ, ডেইলি টেকনাফ এবং কক্সবাজার থেকে প্রকাশিত নিউজ কক্সবাজার এবং কক্সবাজার ক্রাইম নিউজ এবং আলোকিত বিডি পরিচালনা করে আসছেন।

আমি ওনার সফলতা কামনা করছি।

ধন্যবাদান্তে,

শহীদ উল্লাহ শহীদ,
টেকনাফ প্রতিনিধি, চ্যানেল এস
দৈনিক ইনানী, দৈনিক প্রভাতী খবর
এবং
সম্পাদক এবং প্রকাশক টেকনাফ সংবাদ ডটকম।