1. engg.robel.seo@gmail.com : DAILY TEKNAF : DAILY TEKNAF
  2. bandhusheramizan@gmail.com : Mizanur Rahman : Mizanur Rahman
  3. engg.robel@gmail.com : The Daily Teknaf News : Daily Teknaf
মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:৫১ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
চকরিয়ায় যাত্রীবাহি নাইট কোচে ডাকাতি : গুলিবিদ্ধ-১৫,আহত ৩ একজন শিক্ষক মুক্তিযোদ্ধার ইতি কথা টেকনাফের ইতিহাস ঐতিহ্য ও সমসাময়িক ভাবনা টেকনাফে শাহপরীর দ্বীপের বেড়িবাধ পুনঃনির্মাণ প্রকল্প পরিদর্শন করেন এমপি শাওন। হোয়াইক্যং নয়াবাজারের মহিয়সী নারী শামসুন নাহারের ২২তম মৃত্যু বার্ষিকী আজ মাওলানা গোলাম সারোয়ার সাঈদীর ইন্তেকাল শাহ্পরীর দ্বীপে হতদরিদ্রদের মাঝে(IOM)সংস্থার নগদ ৩৫ হাজার টাকা বিতরণ উদ্বোধন করেন নুর হোসেন চেয়ারম্যান আব্দুর রহমানের মৃত্যুতে টেকনাফ উপজেলা রেন্ট-এ কার,নোহা,মাইক্রো মালিক সমবায় সমিতির শোক প্রকাশ ইসলামপুর ইউপি নির্বাচনে সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদে নতুন মুখ সাংবাদিক শাহাজাহান শাহীন ভাল থেকো আব্বু

কক্সবাজার জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পৃথক অভিযানে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা উদ্ধার

  • আপডেট টাইম মঙ্গলবার, ৩ মার্চ, ২০২০

শাহজাহান চৌধুরী শাহীন/ শাহ  ‍মুহাম্মদ রুবেল ।।

কক্সবাজার জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশ অভিযান চালিয়ে ১ লাখ ৯০ হাজার পিস ইয়াবাসহ দুই রোহিঙ্গাকে আটক করেছে। রোববার বিকেলে রামু উপজেলার জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়নের উত্তর মিঠাছড়ি এলাকার ফজলুল হক চৌধুরীর বাড়িতে এবং বাংলাবাজার এলাকায় অভিযান চালানো হয়। এসময় একটি সাদা রঙের মাইক্রোবাসও আটক করা হয়েছে।

জানা গেছে, কক্সবাজার জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর) রেজওয়ান আহমদের নেতৃত্বে গোয়েন্দা শাখার ইন্সপেক্টর কাজী মিজানুর রহমান সহ সঙ্গীয় ফোর্স রোববার বিকালে রামু উপজেলার জোয়ারিয়া নালা ইউনিয়নের উত্তর মিঠা ছড়ি এলাকার চৌধুরী পাড়াস্থ জনৈক ফজলুল হক চৌধুরীর ভাড়া বাসায় অভিযান চালান। এসময় উদ্ধার করা হয় ১ লাখ ৪০ হাজার পিস ইয়াবা। এসময় আটক করা হয়,উখিয়া উপজেলার কুতুপালং আনরেজিষ্ট্রার্ড ক্যাম্পের ডি-৪ ব্লক-২ এর বসিন্দা (রামু ইত্তর মিঠাছড়ি চৌধুরীপাড়াস্থ ফজলুল হক চৌধুরী ভাড়াটিয়া) মো. হোসনের ছেলে নুর মোস্তফা (৩০),কক্সবাজার পৌরসভার ১নং ওয়ার্ড কুতুবদিয়াপাড়ার মৃত নজির আহম্মদের ছেলে সোনা মিয়া (২৫)
এসময় পালিয়ে যায়, রামু উপজেলার রাজারকুল ইউনিয়নের উখিয়ার ঘোনা মো.ইসলামের ছেলে আবদুর রহমান (৩৮), উখিয়া উপজেলার রতœাপালং ইউনিয়নের রতœা গ্রামের ( বর্তমানে কক্সবাজার সদরের পিএমখালী ইউনিয়নের উত্তর পাড়ার নুর আলমের ভাড়াবাসা) মৃত মো. আলমের ছেলে রোহিঙ্গা মো. আয়ুব প্রকাশ তৈয়ব (৪০) সহ আরো ৩/৪ জন পালিয়ে যায়।

পরে, আটককৃতদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে বিকাল সাড়ে ৪ টায় দিকে কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের বাংলাবাজার পুরাতন রোড আব্দুল করিম এর দোকানের সামনে থেকে পরিত্যক্ত সাদা রঙের একটি মাইক্রোবাসটি আটক করে। যার নং- চট্টমেট্ট্রো-চ-১১-৫৪৫৭। মাইক্রো বাসে তল্লাশি চালিয়ে উদ্ধার করা হয় আরো ৫০ হাজার পিস ইয়াবা।

ডিবি পুলিশের ইন্সপেক্টর কাজী মিজানুর রহমান জানান, আটক দুই মাদক কারবারীসহ পলাতক আসামী আবদুর রহমান, উখিয়া থানাধীব কুতুপালং আন রেজিষ্ট্রার্ঢ ডি-৪ আইএমও হাসপাতালের উত্তরপাশে বসবাসকারী রোহিঙ্গা আবদুল গফুর (৩৫), মো. আয়ুব প্রকাশ তৈয়ব কে পলাতক আসামী করে আরো অজ্ঞাতনামা ৩/৪ জন ইয়াবা ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এদিকে, স্থানীয়রা জানিয়েছেন, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আইএমও হাসপাতাল উত্তর পাশে পাহাড়ের একটু নিচে বসবাসকারী রোহিঙ্গা মোঃ আব্দুল গফুর কাছ থেকে সংঘবদ্ধ ইয়াবা ব্যবসায়ী চক্র পরস্পর যোগসাজশে ইয়াবা ক্রয় করে এনে দেশের বিভিন্ন এলাকায় ইয়াবা বিক্রি করে আসছিল।

গ্রেফতারকৃত ও পলাতক আসামিরা মাদক ব্যবসায়ী। তারা দীর্ঘদিন যাবৎ প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে চালিয়ে আসছিল মাদক ব্যবসা।

সূত্র জানায়, জোয়ারিয়া নালা ইউনিয়নের উত্তর মিঠা ছড়ি এলাকার চৌধুরী পাড়াস্থ জনৈক ফজলুল হক চৌধুরীরও মাদক ব্যবসায়ী জড়িত বলে অভিযোগ। তার বাড়িতে ইয়াবা কারবারীদের ভাড়া বাসায় দিয়ে মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছিল। বাসার মালিককে আটক করে ইয়াবা ব্যবসায়ী গুরুত্বপূর্ণ তথ্য উদ্ধারের দাবি জানিয়েছেন বিভিন্ন মহল।

সুত্র:আলোকিত টেকনাফ

আপনার মন্তব্য দিন
এ জাতীয় আরো খবর..